আরবি নামের তালিকা বাংলা অর্থসহ English বানান

আরবি নামের তালিকা বাংলা অর্থসহ

মুসলিম ঘরে সদ্য ভূমিষ্ঠ হওয়া সন্তানের গার্ডিয়ানদের জন্য আরবি নামের তালিকা -র গুরুত্ব অপরিসীম। মূলত এখানে মুসলিম ঘরে জন্মানোর কারণেই আরবি নামের কথাটি এসেছে। অন্যথায় বর্তমান যুগ অনুযায়ী আধুনিক নামের তালিকার দিকটি বেশি প্রাধান্য পেত। যাইহোক, সন্তানের জন্মানোর পর পিতা-মাতার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব হলো তাঁর সন্তানের জন্য একটি সুন্দর আরবি নাম রাখা। এমন কোনো নাম রাখা যাবে না, যেগুলো সুস্পষ্ট নন-ইসলামিক নাম। এখন নাম রাখার ক্ষেত্রে অনেকগুলো জিনিস মাথায় রাখতে হয়। নামটি শুধু ইসলামিক বা আরবিক হলেই হবে না। নামটির বৈশিষ্ট্য, উৎপত্তিস্থল, অর্থ সহ ইত্যাদি দিকে নজর রাখতে হবে। এসব তথ্য পজেটিভ ওয়েতে মেইক সিউর করতে পারলে অবশ্যই সেই নামটি সন্তানের জন্য আরবি নাম হিসেবে রাখা যায়। নাম রাখার ক্ষেত্রে আমাদেরকে অবশ্যই দুইটি দিকের প্রতি নজর রাখতে হবে। সেগুলো হলো-নামটি ইসলামিক বা আরবি নাম কি-না এবং অন্যটি হলো নামটির অর্থ কী। নামটি কী ধরনের অর্থ বহন করছে। ইতিবাচক অর্থ নাকি নেতিবাচক অর্থ। সার্বিকভাবে ভেবে-চিন্তে একটি সুন্দর আরবি নাম সিলেক্ট করতে হবে।

বর্তমানে মা-বাবারা সন্তানের নাম রাখার ক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব দিয়ে থাকে নামের বাহ্যিক অংশকে। যে কারণে অনেক মা-বাবা আছে, যারা তাদের সন্তানের জন্য আধুনিক একটি নাম রাখতে গিয়ে সে নামের অর্থের দিকে কোনো নজর দেয় না। পরবর্তীতে যখন সন্তানরা বড় হয়ে তাদের নামের অর্থ জানতে চায় এবং জেনে যায়, তখন মা-বাবাদের প্রতি সন্তানরা বেশ ক্ষুদ্ধ হয়। তাই এমন বিরূপ অবস্থার মুখাপেক্ষী হওয়ার আগেই আমাদের সন্তানের নাম রাখার প্রতি আরো সচেতন হতে হবে।

আরবি নামের তালিকা পড়ার পাশাপাশি ছেলে ও মেয়েদের আধুনিক ইসলামিক নাম জানতে পড়ুন। ল দিয়ে ছেলেদের ইসলামিক নাম সহ ব দিয়ে ছেলেদের ইসলামিক নামস দিয়ে ছেলেদের ইসলামিক নামম দিয়ে ছেলেদের ইসলামিক নামজ দিয়ে ছেলেদের ইসলামিক নামশ দিয়ে ছেলেদের ইসলামিক নামহ দিয়ে ছেলেদের ইসলামিক নাম, ফ দিয়ে ছেলেদের ইসলামিক নাম সহ বাংলায় সকল ধরনের বর্ণ দিয়ে তৈরিকৃত ছেলে-মেয়েদের নামগুলো পড়ুন। জেবিন নামের অর্থ কি, আরহাম নামের অর্থ কিআহনাফ নামের অর্থ কিআয়ান নামের অর্থ কি,  হাসান নামের অর্থ কিমোহাম্মদ নামের অর্থ কিজান্নাত নামের অর্থ কিরাইসা নামের অর্থ কি সহ রাফি নামের অর্থ কি সমন্নিত আর্টিকেল তিনটি পড়তে পারেন। এছাড়াও পড়তে পারেন সাহাবীদের নামগুলোবাংলা নামআনকমন নাম সহ ছেলে-মেয়েদের ডিজিটাল সুন্দর নাম

শুধু একটি নাম যদি আরবিক হয়, তাহলেই যে সে নামটিকে নিয়ে নিতে হবে ব্যাপারটা তেমন নয়। অবশ্যই আমাদের সেই নামটি কী অর্থ বহন করছে তা নিয়ে রিসার্চ করতে হবে। তারপর দেখতে হবে সে নামটি ইতিবাচক অর্থবহন করছে কি-না নেতিবাচক অর্থ বহন করছে। যদি নেতিবাচক অর্থ বহন করে তাহলে অবশ্যই নামটি আরবি নাম হওয়া সত্ত্বেও সে নামটিকে বর্জন করতে হবে। আর যদি ইতিবাচক অর্থবহন কারী আরবি নাম হয়, তাহলে সে নামটিকে ইচ্ছানুযায়ী গ্রহণ করতে পারেন। এরপর দেখতে হবে নামটি আরবি নাম কি-না। বাংলা অনেকগুলো নাম রয়েছে, যেগুলোর বাহ্যিক রূপ আরবিক কিন্তু বস্তুত নামটি হলো বাংলা একটি নাম। তাই সে নামটির উৎপত্তি স্থল সম্পর্কে জানার চেষ্টা করতে হবে। এভাবেই গবেষণা করার পর একটি সুন্দর ও অর্থবহ আরবি নাম খুঁজে পাবেন। আলোচনা দীর্ঘায়িত না করে চলুন ক্রমান্বয়ে আরবি নামের তালিকা এর অংশটুকু পড়া যাক।

আরবি নামের তালিকা

আরবি নামের তালিকা

আরবি নামের তালিকা দেখার পূর্বে চলুন নাম সম্পর্কি কিছু তথ্য জেনে নেই। স্বাভাবিকভাবে সন্তান জন্ম নেওয়ার পর পিতা-মাতার প্রধান এবং অন্যতম একটি বিশেষ দায়িত্ব হচ্ছে সে সন্তানের নাম রাখা। এখন সন্তানটি যদি মুসলিম ঘরে জন্মায়, তাহলে অবশ্যই ইসলামিক রীতি-নীতি অনযায়ী সে সন্তানের নামটি রাখতে হবে। এখন আমাদের পিতা-মাতাদের ক্ষেত্রে বর্তমানে যে ভুলটি হচ্ছে সচারাচর, সে ভুলটি হলো অন্ধভাবে পশ্চিমা সংস্কৃতি দ্ধারা প্রভাবিত হওয়া। যে কারণে তাদের সন্তানের নামের দিকে সামান্য লক্ষ্য করলেই সে সম্পর্কে মোটামোটি একটি ধারণা পাওয়া যায়। তবে সবাই এমন নয়। সংখ্যালগিষ্ঠদের কথা আমি বলছি। মাশাআল্লাহ, অনেক ভাই-বোন আছেন, যারা তাদের সন্তান সহ আত্মীয়দের জন্য সুন্দর সুন্দর আরবি নাম পছন্দ করে রাখে। ঠিক একই ভাবে মুসলিম হিসেবে আমাদের উচিত আমাদের সন্তান জন্য একটি সুন্দর আরবি বা ইসলামিক নাম পছন্দ করতে হবে। তারপর যে বিষয়টি আসে, সেটি হলো নামের অর্থের দিকটি। অনেকেই এই ভুলটি করে থাকে। নামটি আরবি হলেই কোনো কিছু না ভেবে সন্তানের নাম রাখার ক্ষেত্রে চূড়ান্ত করে ফেলে। কিন্তু আলটিমেটলি নাম রাখার অনকে পড়ে বোঝতে পারে যে, নামটির অর্থ মোটেও নেতিবাচক অর্থ ছিল না। যা কারোই কাম্য নয়। তাই নাম রাখার ক্ষেত্রে অবশ্যই আমাদের কে সে নামটির অর্থ যে নেতিবাচক, তা মেইক সিউর করতে হবে। মোটামোটি এই ছিল গুরুত্বপূর্ণ কিছু কথা আরবি নামের তালিকা পর্বে। আমরা ২ ভাবে সন্তানের জন্য আরবি নামের তালিকাটি উল্লেখ করেছি। সেগুলো হলো

  • ছেলেদের জন্য আরবি নামের তালিকা
  • মেয়েদের জন্য আরবি নামের তালিকা

মূলত এই দুই পদ্ধতিতে আলাদা আলাদা ২ভাবে সন্তানের জন্য আরবি নামের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। আশা করি আজকের পোস্টটি দ্ধারা বেশ ভালো ভাবে উপকৃত হতে পারবেন।

ছেলেদের আরবি নামের তালিকা

ছেলেদের আরবি নামের তালিকা

আরবি নামের তালিকা পর্বের প্রথমে আমরা রেখেছি ছেলেদের আরবি নামের তালিকা পর্বটি। প্রথমে ছেলেদের বেশ কিছু সুন্দর সুন্দর আরবি নাম জানবো বাংলা অর্থসহ এবং ইংরেজী বানান সহ। এরপর ধারাবাহিকভাবে মেয়েদের আরবি নামগুলো সম্পর্কে জ্ঞান নেওয়ার চেষ্টা করবো। এখানে ছেলেদের জন্য বেশ কিছু আকর্ষণীয় আকর্ষণীয় আরবি নাম উল্লেখ করা হয়েছে, যা যে কেউ তাঁর ছেলে সন্তানের জন্য রাখতে পারে। সবগুলো নাম বাঁচাইকৃত । এবং সবগুলো নাম হলো ইসলামিক অথবা আরবিক। সবগুলো নামের অর্থ ইতিবাচক। তাই আপনার যদি একটি ছেলে সন্তান হয়, এবং তাঁর জন্য ভালো একটি আরবি নাম রাখতে চান, তাহলে নিম্নোক্ত ছেলেদের আরবি নামের তালিকা থেকে যেকেনো একটি নাম পছন্দ করে পিক করতে পারেন। যেহেতু সবগুলো নাম হলো আরবিক এবং ইতিবাচক অর্থবহ, সুতরাং সংকোচ ছাড়াই একটি নাম পিক করতে পারেন। চলুন তাহলে ছেলেদের আরবি নামের তালিকাটি দেখা যাক।

  • আজিজ =  Ajij = ক্ষমতাবান
  • আনাস = Anas = অনুরাগ
  • লোকমান = Lokman = জঞানী
  • মাসুম = Masum = নিষপাপ
  • জাফর = Jafor = বড় নদী
  • ইমাদ = Imad = সুদৃঢ়স্তম্ভ
  • মাকহুল = Makhul = সুরমাচোখ
  • মাইমূন = Maimun = সৌভাগ্যবান
  • হুসাম = Husam = ধারালো তরবারি
  • বদর = Bodor =পূর্ণিমার চাঁদ
  • হাম্মাদ = Hammad = অধিক প্রশংসাকারী
  • হামদান = Hamdans = প্রশংসাকারী
  • সাফওয়ান = Safowan = স্বচ্ছ শিলা
  • মামদুহ = Mumduh = প্রশংসিত
  • নাবহান = Nabhan = খ্যাতিমান
  • নাবীল = Nabil  = শ্রেষ্ঠ
  • নাদীম = Nadim = অন্তরঙ্গ বন্ধু
  • জালাল =  Jalal = মহিমা,
  • কফিল = Kafil = জামিন দেওয়া,
  • করিম = Karim = দানশীল,সম্মানিত,
  • কাশফ = Kashof = উন্মুক্ত করা,
  • কামাল = Kamal = যোগ্যতা,সম্পূর্ণতা,
  • গণী = Goni = ধনী,
  • শফিক = Shafiq = দয়ালু
  • তানভীর = Tanvir = আলোকিত
  • শাদমান = Shadman = হাসিখুশী
  • সুলতান আহমদ = Sultan Ahmmed = প্রশংসিত সাহায্যকারী
  • সাইফুদ্দীন = Saifuddin = দ্বীনের সূর্য্য
  • সাইফুল হক = Saiful Haq = প্রকৃত তরবারী
  • সাইফুল হাসান = Saiful Hasan = সুন্দর কল্যাণ
  • সাইফুল ইসলাম = Saiful Islam = ইসলামের প্রিয়
  • সাইয়্যেদ = Saiyed = সরদার
  • সৈয়দ আহমদ = Saoid Ahmmed = প্রশংসিত ভয় প্রদর্শক
  • সাখাওয়াত হুসাইন = Sakhawat Hossain = সুন্দর আলোবিচ্ছুরক
  • সাকিব সালিম = Sakib Salim = দীপ্ত স্বাস্থ্যবান
  • সালাউদ্দীন = Salauddin = দ্বীনের ভদ্র
  • সালাম = Salam = নিরাপত্তা
  • সলীমুদ্দীন = Salimuddin = দ্বীনের সাহায্য
  • সামীম  = Samim = চরিত্রবান
  • সামিন ইয়াসার = Samin Yasir = মুল্যবান সম্পদ
  • গানেম = Ganem = গাজী, বিজয়ী
  • খাত্তাব = Khattab = সুবক্তা
  • সাবেত = Sabet = অবিচল
  • শাকের = Saker = কৃতজ্ঞ
  • তাযিন = Tajin = সুন্দর
  • ইমাদ = Emad = খুঁটি
  • আবরার = Abrar = ন্যায়বান,
  • আহসান = Ahsan = উৎকৃষ্টতম,
  • আহনাফ = Ahnaf = ধার্মিক,
  • বাসিত = Basit = স্বচ্ছলতা দানকারী,
  • গিয়াস = Gias = সাহায্য,
  • ফয়সাল = Faysal = বিচারক,
  • বোরহান = Borhan = প্রমাণ,
  • গালিব = Galib = বিজয়ী,
  • হালিম = Halim = ভদ্র,
  • গোলাম মুহাম্মদ = Golam Muhammed = মুহাম্মদের দাস
  • গোলাম কাদের = Golam Kader = কাদেরের দাস ইত্যাদি।
  • উসামা = Usama = সিংহ
  • হামদান = Hamdan = প্রশংসাকারী
  • লাবীব =  Labir = বুদ্ধিমান
  • রাযীন = Rajin = গাম্ভীর্যশীল
  • রাইয়্যান = Raiyan = জান্নাতের দরজা বিশেষ
  • রাগীব আনসার = Ragib Ansar = আকাঙ্গ্ক্ষিত ব্ন্ধু
  • রাগীব আসেব  = Ragib Aseb = আকাঙ্গ্ক্ষি যোগ্যব্যক্তি
  • রাগীব আশহাব = Ragib Ashhab = আকাঙ্গ্ক্ষিত বীর
  • রাগীব বরকত = Ragib Barkot = আকাঙ্গ্ক্ষিত সৌভাগ্য
  • রাগীব হাসিন = Ragib Hasin = আকাঙ্গ্ক্ষিত সুন্দর
  • রাগীব ইশরাক = Ragib Esrak = আকাঙ্ক্ষিত সকাল
  • রাগীব মাহতাব = Ragib Mahtab = আকাঙ্ক্ষিত চাঁদ
  • রাগীব মোহসেন = Ragib Mohsen = আকাঙ্ক্ষিত উপকারী
  • রাগীব মুবাররাত = Ragib Mubararat = আকাঙ্ক্ষিত ধার্মিক
  • রাগীব মুহিব = Ragib Muhib = আকাঙ্ক্ষিত প্রেমিক
  • রাগীব নাদের = Ragib Nader = আকাঙ্ক্ষিত প্রিয়
  • সাজেদর রহমান = Sajedor Rahman = দয়াময়ের সামনে মস্তকঅবনমিতকারী
  • সাব্বীর আহমেদ = Sabbir = প্রশংসিত সাহায্যকারী
  • সালিম শাদমান = Salim Shadman = স্বাস্থ্যবান আনন্দিত
  • রাদ শাহামাত = Rad Shamat = বজ্র সাহসিকতা
  • রাব্বানী = Rabbani = স্বর্গীয়
  • রাব্বানী রাশহা = Rabbani Rashada = স্বর্গীয় ফলের রস
  • রবীউল হাসান = Robiul Hasasn = ইসলামের বসন্তকাল
  • রফিকুল হাসান = Rafiqul Hasan = সুন্দেরের উচ্চ
  • রফিকুল ইসলাম = Rafiqul Islam = ইসলামের মহত্ত্ব
  • রফিউদ্দীন = Rofiuddin = দ্বীনের সুগন্ধী ফুল
  • রাগীব আবিদ = Ragib Abid = আকাঙ্গ্ক্ষিত এবাদতকারী
  • রাগীব আখলাক = Ragib Akhlak = আকাঙ্গ্ক্ষীত চারিত্রিক গুনাবলি
  • রাগীব আখইয়ার = Ragib Akhyear = আকাঙ্গ্ক্ষি চমৎকার মানুষ
  • রাগীব আখতার = Ragib Akhtar =  আকাঙ্ক্ষিত তারা
  • রাগীব আমের  = Ragib Amer  = আকাঙ্গ্ক্ষিত শাসক
  • রাগীব আনিস = Ragib Anis = আকাঙ্গ্ক্ষিত বন্ধু
  • রাগীব আনজুম = Ragib Anjum =  আকাঙ্ক্ষিত তারা
  • রাগীব নিহাল = Ragib Nihal = আকাঙ্ক্ষিত চারা গাছ
  • রাগীব নূর = Ragib Nur = আকাঙ্ক্ষিত আলো
  • রাগীব রহমত = Ragib Rahmot  = আকাঙ্ক্ষিত দয়া
  • রাগীব রওনক = Ragib Rawnok = আকাঙ্ক্ষিত সৌন্দর্য
  • রাগীব সাহরিয়ার = Ragib Shariyar = আকাঙ্ক্ষিত রাজা
  • রাগীব শাকিল = Ragib Shakil  = আকাঙ্ক্ষিত সুপরুষ
  • রাগীব ইয়াসার = Ragib Yasir = আকাঙ্ক্ষিত সম্পদ
  • রাগীব নাদিম = Ragib Nadim = আকাঙ্ক্ষিত সংগী
  • রাশীদ = Rashid = সরল,শুভ
  • রাহীম = Rahim = দয়ালু
  • রাহমান = Rahman = দয়ালু
  • রহমত = Rahmot = রহমত
  • রায়হানুদ্দীন = Rayhanuddin = দ্বীনের বিজয়ী
  • রঈসুদ্দীন = Raisuddin = দ্বীনের সাহায্যকারী
  • রজনী = Rojni = রাত
  • রশিদ = Rashid = ধার্মিক
  • রাশিদ আবিদ = Roshid Abid = সঠিক পথে পরিচালিত ইবাদতকারী
  • রশিদ আবরার = Roshid Abrar = সঠিক পথে পরিচালিত ন্যায়বান
  • রাশিদ আহবাব = Roshid Ahbab = সঠিক পথে পরিচালিত বন্ধু
  • রশিদ আমের = Roshid Amer = সঠিক পথে পরিচালিত শাশক
  • রাশিদ আনজুম = Rashid Anjum = সঠিক পথে পরিচালিত তারা
  • রাশিদ আরিফ = Rashid Arif = সঠিক পথে পরিচালিত জ্ঞানী
  • রাশিদ আসেফ = Rashid Asef = সঠিক পথে পরিচালিত যোগ্যব্যক্তি
  • রাশিদ লুকমান = Rahsid Lukman = সঠিক পথে পরিচালিত জ্ঞানী ব্যক্তি
  • রাশিদ মুবাররাত = Rashid Mubarrat = সঠিক পথে পরিচালিত ধার্মিক
  • রাশিদ মুজাহিদ = Rashid Mujahid = সঠিক পথে পরিচালিত ধর্ম যোদ্ধা
  • রাশিদ মুতাহাম্মিল = Rashid Mutahammil = সঠিক পথে পরিচালিত ধৈর্যশীল
  • রাশিদ মুতারাদ্দীদ = Rahisd Mutaraddid = সঠিক পথে পরিচালিত চিন্তাশীল
  • রাশিদ মুতারাসসীদ = Rashid Mutarassid = সঠিক পথে পরিচালিত লক্ষ্যকারী
  • রাশীদ নাইব = Rashid Naib = সঠিক পথে পরিচালিত প্রতিনিধি
  • রাশিদ শাবাব = Rashid Sabab = সঠিক পথে পরিচালিত জীবনের শ্রেষ্ঠ
  • রাশিদ শাহরিয়ার  = Rashid Shariar = সঠিক পথে পরিচালিত রাজা
  • রাশিদ তাজওয়ার = Rashid Tajowar = সঠিক পথে পরিচালিত রাজা
  • রাশিদ তালিব = Rashid Talib  = সঠিক পথে পরিচালিত অনুসন্ধানকারি
  • রাশিদ তকী  = Rashid Toki = সঠিক পথে পরিচালিত ধার্মিক
  • রাগীব আবসার = Ragib Absar = আকাঙ্ক্ষিত দৃষ্টি
  • রুকুনদ্দীন = Rukonuddin = দ্বীনের স্ফুলিঙ্গ
  • বিলাল = Billal = একজন সাহাবী রা: এর নাম
  • বাশার = Bashar = সুখবর আনয়নকারী
  • বোরহান = Borhan = প্রমাণ
  • বাকির = Bakir = পছন্দনীয়
  • বরকত = Borkat = বৃদ্ধি
  • বাসিল  = Basil = সাহসী
  • বাসিম = Basim = সুখী
  • দাঊদ = Daod = একজন নবীর নাম
  • দিলোয়ার = Dilowar = সাহসী
  • দাওলা = Dawla =  সম্পদ
  • দিলদার = Dildar = পছন্দনীয় একজন
  • ইহান = Yihan = পূর্ণ চাঁদ
  • ইহসান = Yehsan = শক্তিশালী
  • ইমরান = Emran = অর্জন
  • ফরিদ = Farid = আলাদা
  • ফাহিম = Fahim = বুদ্ধিমান
  • ফালাহ্ = Falah = সাফল্য
  • ফায়জান = Fayjan = শাসক
  • ফয়সাল = Faysal = মজবুত
  • ফুয়াদ = Fuhad = অন্তর
  • ফারুক = Faruk = মিথ্যা থেকে সত্যকে আলাদাকারী
  • গালিব = Galib = বিজেতা
  • গাজি = Gazi = সৈনিক
  • গোফরান = Gofran = ক্ষমাশীল
  • গুলজার = Guljar = বাগান
  • হারিস = Haris = বন্ধু
  • হাবিব = Habib = পছন্দনীয়
  • ইব্রাহীম = Ebrahim = একজন নবীর নাম
  • ইদ্রীস = Edris = একজন নবীর নাম
  • ইফতিখার = Eftikhar = প্রমাণিত
  • ইহসান = Eahsan = পরোপকার
  • ইকরিমাহ্  = Ekrimah = একজন সাহাবীর রা: নাম
  • ইমতিয়াজ = Emtiaz = ভিন্ন
  • ইনাম = Inam = পুরস্কার
  • ইনসাফ = Ensaf = সুবিচার
  • জাফর = Jafor = প্রবাহ
  • জামাল = Jamal = সৌন্দর্য
  • জাবেদ = Jabed = উজ্জ্বল
  • জুনায়িদ = Junaid = যুদ্ধা
  • যিয়াদ = Jihad = খুব ভালো
  • কাসিফ = Kasif = আবিষ্কারক
  • কফিল = Kafil = জামিন
  • কায়সার = Kaysar = রাজা
  • কামাল = Kamal = পূর্ণতা
  • কামরান = Kamran = নিরাপদ
  • কাসিম = Kasim = আকর্ষণীয়
  • কাজি = Kaji = বিচারক
  • খালিদ = Khalid = অটল
  • খালিস = Khalis = বিশুদ্ধ
  • খতিব = Khatib = বক্তা
  • খুবাইব = Khuaib = দীপ্ত
  • খুররাম = Khurram = সুখী
  • কিফায়েত = Kifayet = যথেষ্ট
  • মুবারক = Mubarak = ভাগ্যবান
  • লাবিব = Labib = বুদ্ধিমান
  • লিবান = Liban = সফল
  • মাহাদ = Mahad = মৃত্যু
  • মুনতাজির =  Muntacir= অপেক্ষমান
  • মুজাফ্ফার = Mujaffor = বিজেতা
  • মুজাক্কির = Mujakkir = স্মরণ
  • মুজাম্মিল = Mujammil = জড়ানো
  • নাবিল = Nabil = আদর্শ লোক
  • নাদিম = Nadim = সহচর
  • নাইম = Nayeem = আরাম
  • নাজিব = Najib = বুদ্ধিমান
  • নাকিব = Nakib = নেতা
  • নাসির = Nasir = সাহায্য
  • নিহান = Nihan = সুন্দর
  • নিহাল = Nihal = সফল
  • নুমান = Numan = আল্লাহর রহমত প্রাপ্ত
  • নূর = Nur = আলো
  • উমাইর = Umair = বুদ্ধিমান
  • উমার = Umar = দীর্ঘায়ু
  • উসামা =  Usama = সিংহ
  • পারভেজ = Parvez = সফল
  • কামার = Kamar = চাঁদ
  • কারিব = Karib = নিকট
  • কাসিম = Kasim = অংশ
  • কুরবান = Kurban = ত্যাগ
  • রব্বানি = Robbani = স্বর্গীয়
  • রাফি = Rafi = উঁচু
  • রাইহান = Raihan = জান্নাতী ফুল
  • রাইয়্যান = Raiyan = সন্তুষ্ট
  • রাকিম = Rakim = লেখক
  • মাহবুব = Mahbub = প্রিয়
  • মাহদি  = Mahdi  =  সঠিক পথ প্রাপ্ত
  • মাহের = Maher = দক্ষ
  • মাহফুজ = Mahfuj = নিরাপদ
  • মানসূর = Mansur = বিজয়ী
  • মাকবুল = Makbul = জনপ্রিয়
  • মাকিল = Makil = বুদ্ধিমান
  • মারুফ = Maruf = গ্রহণীয়
  • মাসুদ = Masud = সাক্ষী
  • মাসরুর = Mashrur = সুখী
  • মিফতা = Mifta = চাবি
  • মিনহাজ = Minhaj = রাস্তা
  • মিসবাহ্ = Misbah = আলো
  • মুস্তাকিম = Mustakim = সোজা পথ
  • মুশফিক = Musfique = বন্ধু
  • রিহান =  Rihan = রাজা
  • রিয়াদ = Riyad = বাগান
  • রিজওয়ান = Rijowan = জান্নাতী দূত
  • অলী = Ali = বন্ধু, অভিভাবক
  • অহি = Aohi = আল্লাহর বাণী প্রত্যাদেশ
  • অলী উল্লাহ  = Aoli Ullah = আল্লাহর বন্ধু
  • অলি আহমাদ = Aoli Ahmmad = প্রশংসাকারী বন্ধু
  • অলি আহাদ = Aoli Ahaad = একক বন্ধু
  • অলি আবসার = Aoli Absar = বন্ধু উন্নত দৃষ্টি
  • অমিত হাসান = Aomit Hasan = সুদর্শন

এখানে উল্লেখিত প্রতিটি নাম হলো ছেলেদের জন্য আরবি নাম। আপনি যদি আপনার পরিবার কিংবা আত্মীয়র মধ্যে কোনো ছেলে সন্তানের জন্য একটি আরবি নাম খুঁজে থাকেন, তাহলে উপরের ছেলেদের আরবি নামের তালিকা থেকে যেকোনো একটি সুন্দর নাম বাঁচাই করে রাখতে পারেন। আর এখনো যদি কোনো আরবি নাম আপনার ছেলে সন্তানের জন্য পছন্দ না করতে পেরে থাকেন, তাহলে দয়া করে পুনরায় পুরো পোস্টটি আরেকবার পড়ুন। আশা করি ভালো এবং অর্থবহ একটি ছেলেদের আরবি নাম পিক করতে সক্ষম হবেন।

মেয়েদের আরবি নামের তালিকা

মেয়েদের আরবি নামের তালিকা

ছেলেদের পাশাপাশি এখানে মেয়েদের আরবি নামের তালিকা টিও প্রকাশ করা হয়েছে। এখানে প্রায় কয়েকশত মেয়েদের আরবি নাম উল্লেখ করা হয়েছে। আজকের আর্টিকেলের নিম্নে উল্লেখিত প্রতিটি নাম হলো মেয়েদের জন্য। এবং প্রতিটি নাম হলো আরবিক নাম। এখান থেকে যেকোনো একটি মেয়েদের নাম সিলেক্ট করতে পারেন। যদি আপনি সত্যিকার অর্থে আপনার পরিবারের কোনো মেয়ের জন্য অথবা  আত্মীয়দের মধ্যে পরিচিত কারো কণ্যা সন্তানের জন্য একটি আরবি নাম খুঁজে থাকেন, তাহলে আজকের পোস্টের এই পর্বটি আপনার জন্য। আশা করি পুরো অংশটি পড়ার পর আপনি সুন্দর ও আকর্ষণীয় একটি মেয়েদের আরবি নাম পছন্দ করতে পারবেন। তাই আরোচনা না বাড়িয়ে চলুন মেয়েদের আরবি নামের তালিকা টি পড়া যাক। হোফ করা যায়, পুরো আর্টিকেলটি থেকে সুন্দর একটি মেয়েদের আরবি নাম পিক করতে পারবেন। মেয়েদের জন্য আরবি নামগুলো হলো-

  • তাবাসসুম  = Tabassum =  মুসকি হাসি
  • তাসনিয়া = Tasnia =  প্রশংসিত
  • তাহসীনা   = Tahsina =   উত্তম
  • তাহিয়্যাহ  = Taiyah =   শুভেচ্ছা
  • তোহফা = Tohfa =   উপহার
  • তাখমীনা = Takhmina =   অনুমান
  • তাযকিয়া   = Tajkia = পবিত্রতা
  • তাসলিমা = Taslima =   সর্ম্পণ
  • তাসমিয়া  = Tasmia =   নামকরণ
  • তাসনীম = Tasnim = বেহেশতের ঝর্ণা
  • তাসফিয়া = Tasfia = পবিত্রতা
  • তাসকীনা = Taskina = সান্ত্বনা
  • দীবা   = Diba =   সোনালী
  • বিলকিস   = Bilkis =   রাণী
  • আনিকা  = Anika =  রুপসী
  • তাবিয়া   = Tabia =   অনুগত
  • তাসমীম = Tasmim = দৃঢ়তা
  • তাশবীহ = Tashbih = উপমা
  • তাকিয়া  = Takia =   চরিত্র
  • তাকমিলা = Taklima = পরিপূর্ণ
  • তামান্না = Tamanna = ইচ্ছা
  • তামজীদা = Tamjida = মহিমা কীর্তন
  • আফরা = Afra =সাদা
  • সাইয়ারা = Saiyara =তারকা
  • আফিয়া = Afia = পুণ্যবতী
  • মাহমুদা = Mahmuda = প্রশংসিতা
  • রায়হানা = Rayhana = সুগন্ধি ফুল
  • হাসিনা = Hasina =সুন্দরি
  • হাবীবা = Habiba =প্রিয়া
  • ফারিহা = Faria = সুখি
  • দীবা = Diba = সোনালী
  • বিলকিস = Bilkis = রাণী
  • আনিকা =Anika = রুপসী
  • তাবিয়া = Tabia = অনুগত
  • তাবাসসুম = Tabassum = মুসকি হাসি
  • তাসনিয়া = Tasnia = প্রশংসিত
  • তাহসীনা = Tahsina = উত্তম
  • তাহিয়্যাহ = Taiyah = শুভেচ্ছা
  • তোহফা = Tohfa = উপহার
  • তাখমীনা = Takhmina = অনুমান
  • তাযকিয়া = Tajkiya = পবিত্রতা
  • তাসলিমা = Taslima = সর্ম্পণ
  • তাসমিয়া = Tasmia = নামকরণ
  • তাসনীম = Tasnim = বেহেশতের ঝর্ণা
  • তাসফিয়া = Tasfiya = পবিত্রতা
  • শামিখা = Shamikha  = সুন্দরী
  • শারিকা  = Sahriqa  = দৃঢ় / উচ্চ / উন্নত / মহিরূপ
  • শাম্মা  = Shamma  = উজ্জল, মেয়েদের আনকমন নামের তালিকা।
  • শায়মা  = Shayma  = সুন্দর
  • শাফীকা = Shafiqa  = সুপারিশ কারিনী
  • শাকীলা  = Shakila  = স্নেহশীলা
  • হানিয়া = Hania =  সুখী, তৃপ্ত, খুশী
  • হামীমা = Hamima =  অন্তরঙ্গ বান্ধবী
  • হাসানা = Hasana =  সুন্দর, সুকর্ম
  • হাবীবা = Habiba =  প্রিয়, প্রিয়তমা, সাহাবীর নাম
  • সালীমা  = Salima =  সুস্থ
  • সারাফ ওয়াসিমা  = Sharaf Owasima =  গানরত সুন্দরী
  • সায়ীদা  = Saida =  পুন্যবতী
  • সাবিহা  = Sabiha =  রূপসী / দ্রুতগামি অশ্ব
  • সাকেরা  = Sakera =  কৃতজ্ঞতা প্রকাশকারী, পাকিস্তানি মেয়ে শিশুর নাম
  • সানজীদাহ  = Sanjidah =  বিবেচক
  • সীমা / সিমা  = Sima =  কপাল, দুই অক্ষরের মেয়েদের আধুনিক নাম।
  • সুবাহ  = Subha =  প্রভাত
  • সুফিয়া  = Sufia =  আধ্যাত্মিক সাধনাকারী
  • হুমাইরা = Humaira =  অর্থ – লাল রঙের পাখি
  • হাফেজা = Hafeza =  সংরক্ষণকারিণী, কোরান হেফজকারিণী
  • শামসিয়া = Shamsia  = প্রদীপ
  • শাহবা  =  Shaba  = ছাতা
  • শাহলা  =  Shahla  = বাঘিনী
  • তাসকীনা = Taskina = সান্ত্বনা
  • তাসমীম = Tasmim = দৃঢ়তা
  • তাশবীহ = Tashbih = উপমা
  • তাকিয়া  = Takia =  শুদ্ধ চরিত্র
  • তাকমিলা = Taklima = পরিপূর্ণ
  • তামান্না = Tamanna = ইচ্ছা
  • তামজীদা = Tamjida = মহিমা কীর্তন
  • তাহযীব = Tahjib = সভ্যতা
  • তাওবা = Tawba = অনুতাপ
  • তানজীম = Tanjim = সুবিন্যস্ত
  • তাহিরা = Tahira = পবিত্র
  • তবিয়া = Tobia = প্রকৃতি
  • তরিকা = Torika = রিতি-নীতি
  • তাইয়্যিবা = Taiyiba = পবিত্র
  • তহুরা = Tohura = পবিত্রা
  • তুরফা = Turfa = বিরল বস্তু
  • তাহামিনা = Tahamina = মূল্যবান
  • তাহমিনা = Tahmina = বিরত থাকা
  • তানমীর  = Tanmir =  ক্রোধ প্রকাশ করা
  • ফরিদা = Forida = অনুপম
  • ফাতেহা = Fateha = আরম্ভ
  • ফাজেলা = Fajela = বিদুষী
  • ফাতেমা = Fatema = নিষ্পাপ
  • ফারাহ = Farah = আনন্দ
  • ফারহানা = Farhana = আনন্দিতা
  • ফারহাত = Farhat = আনন্দ
  • ফেরদাউস  = Ferdaus =   বেহেশতের নাম
  • ফসিহা = Fsiha = চারুবাক
  • ফাওযীয়া = Fawjiya = বিজয়িনী
  • মালিহা = Maliaha = রুপসী
  • ফারজানা = Farjana = জ্ঞানী
  • পারভীন = Parbin = দীপ্তিময় তারা
  • ফিরোজা = Piroja = মূল্যবান পাথর
  • ফজিলাতুন = Pojilatun = অনুগ্রহ কারিনী
  • ফাহমীদা = Pahmida = বুদ্ধিমতী
  • ফাবিহা বুশরা = Fabiha Busra = অত্যন্ত ভাল শুভ
  • মোবাশশিরা = Mubashsira = সুসংবাদ বাহী
  • মাজেদা = Majeda = সম্মানিয়া
  • মাদেহা = Madeha = প্রশংসা
  • মারিয়া = Maria = শুভ্র
  • মাবশূ রাহ = Mabush Rah = অত্যাধিক সম্পদশালীনী,
  • মুতাহাররিফাত = Mutahar rifat = অনাগ্রহী
  • মুতাহাসসিনাহ = Mutahassinah = উন্নত
  • মুতাদায়্যিনাত = Mutadainat = বিশ্বস্ত ধার্মিক মহিলা,
  • মাহবুবা = Mahbuba = প্রেমিকা
  • মুহতারিযাহ = Muhtarijah = সাবধানতা অবলম্বন কারিনী
  • মুহতারামাত = Muhtaramat = সম্মানিতা
  • মুহসিনাত = Muhsinat = অনুগ্রহ কারিনী
  • মাহতরাত = Mahtrat = সম্মিলিত
  • মাফরুশাত = Mafrushat = কার্ণিকার
  • মাহাসানাত = mahasanat = সতী-সাধবী
  • মাহজুজা = Mahjuja = ভাগ্যবতী
  • মারজানা = Marjana = মুক্তা
  • আমিনা = Amina = নিরাপদ
  • আনিসা = Anisa =কুমারী
  • আদীবা = Adiba =মহিলা সাহিত্যিক

মূলত উপরোক্ত নামগুলো ছিল আজকের আর্টিকেলের মেয়েদের আরবি নামগুলো। আপনি যদি সম্পূর্ণ পার্টটি অর্থাৎ মেয়েদের নামের পার্টটি পড়ে থাকেন, তাহলে আশা করি ইতিমধ্যে আপনি সুন্দর একটি মেয়েদের আরবি নাম চয়েজ করতে পেরেছেন। যদি এখনো কোনো একটি আরবি নাম চয়েজ করতে না পেরে থাকেন, তাহলে দয়া করে পুনরায় পুরো পোস্টটি পড়ুন এবং ছেলে ও মেয়েদের আরবি নামগুলো আরেকবার পড়ুন। এতে করে নাম চয়েজে স্মুথনেস তৈরি হবে।

ছেলে ও মেয়েদের আরবি নামের তালিকা

ছেলে ও মেয়েদের আরবি নামের তালিকা

যেহেতু আজকের আর্টিকেলটি হলো আরবি নামের তালিকা সম্পর্কিত। তাই আলোচনার সুবিধার্থে এখানে ছেলে ও মেয়ে উভয়ের নাম নিয়েই আলোচনা করা হয়েছে। এখানে ছেলে ও মেয়েদের আরবি নামের তালিকা আলাদা আলাদা পার্ট বাই তুলে ধরা হয়েছে। প্রথমে রেখেছি ছেলেদের জন্য আরবি নামের তালিকা এবং এর পরই রেখেছি মেয়েদের জন্য আরবি নামের তালিকা পর্বটি। সুতরাং সার্বিকভাবে বিবেচনা করলে দেখা যায় যে, কেউ যদি তার ছেলে বা মেয়ে সন্তানের জন্য আরবি নাম চয়েজ করতে চায় তাহলে তাঁর জন্য আজকের আর্টিকেলটি অর্থাৎ আরবি নামের তালিকা আর্টিকেলটিই যথেষ্ট। তাই যদি এখন আমরা আশা করতে পারি যে, আপনি যদি একটি আরবি নাম খুঁজে থাকেন, হতে পারে সেটা আপনার পরিবারের অথবা আত্মীয়দের কারো ছেলের জন্য অথবা এটা হতে পারে একটি মেয়ের জন্য, সেক্ষেত্রে আজকের আর্টিকেলটি দ্ধারা বেশ ভালোভাবে উপকৃত হতে পারবেন। তাই যদি এখনো কোনো নাম চয়েজ করতে না পেরে থাকেন, তাহলে দয়া করে আজকের আর্টিকেলটি অর্থাৎ আরবি নামের তালিকা টি পুনরায় পড়ুন। আশা করি এখানে থেকেই আপনাদের পরিবারের নতুন সদস্যের জন্য একটি সুন্দর আরবি নাম চযেজ করতে সক্ষম হবেন।

আরবি নামের তালিকা সম্পর্কে জানতে

1 thought on “আরবি নামের তালিকা বাংলা অর্থসহ English বানান”

  1. আমার নাম ইমাম হোসেন ও আমার wife এর নাম আলেয়া বেগম আমাদের নামের সাথে মিলিয়ে কন্যা সন্তানের নাম রাখতে চাই

    Reply

Leave a Comment