সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ – মালয়েশিয়া যাওয়ার পদ্ধতি ও উপায়

এখন আমি আপনাদের মাঝে আলোচনা করতে যাচ্ছি সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪। আমাদের দেশ থেকে প্রতি বছর অসংখ্য লোক বিভিন্ন উদ্দেশ্যে মালয়েশিয়া গমন করে। বাংলাদেশ থেকে সবচেয়ে বেশি লোক যায় সৌদি আরবে তারপরে যে দেশটি আছে সেটা হচ্ছে মালয়েশিয়া। সুতরাং বোঝা যাচ্ছে যে মালয়েশিয়া কত বাংলাদেশে প্রতি বছর গমন করে। তবে বাংলাদেশ থেকে যত মানুষ যায় তার বেশিরভাগই যাই কাজের উদ্দেশ্যে।তবে অনেক লোক আছে যারা মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য বিভিন্ন হয়ে প্রতারিত হয়। এমনও লোক আছে যারা বিভিন্ন এজেন্সির মাধ্যমে মালয়েশিয়ার যাওয়ার ব্যবস্থা করে নিঃস্ব হয়েছে। 

আমাদের মধ্যে অনেকে জানিনা যে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪। তবে এভাবে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ মানুষের গেলে প্রতারিত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে না। তাহলে চলুন আমরা দেখে নেই সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ সম্পর্কে। নিচে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হলো।

সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪

সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার অন্যতম একটা উপায় হচ্ছে নিকটস্থ ছেলে কর্মসংস্থান ও জনশক্তি অফিস থেকে মালয়েশিয়ায় চাকরির জন্য আবেদন করা। বর্তমানে মালয়েশিয়ার বিভিন্ন ধরনের কোম্পানি যারা আছে চাকরি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে থাকে। আপনি এ সকল চাকরিতে আবেদন করে সরকারিভাবে যেতে পারে।

বাংলাদেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এবং মানুষের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর মধ্যে একটা বৈঠক হয়। সেই বৈঠকে একটা সমঝোতা করা হয়। যে সমঝোতার মাধ্যমে বাংলাদেশ থেকে মালয়েশিয়া ০২ লক্ষ৫০ হাজার কর্মী মালয়েশিয়ায় কাজের জন্য যাওয়ার সুযোগ হবে। সেক্ষেত্রে এর জন্য অনলাইনে মালয়েশিয়া ভিসার জন্য আবেদন করতে হবে এবং বি এম আই টি রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। এই নিবন্ধন ছাড়ার মালয়েশিয়া চাওয়া যাবে না। 

এখানে আমরা যে সকল বিষয়ে আলোচনা করব তার আলোচনা সূচি উল্লেখিত করা হলো।

  • সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪
  • মালয়েশিয়া রাজধানীর নাম কি
  • বাংলাদেশ থেকে মালয়েশিয়ার দূরত্ব কত কিলোমিটার
  • মালয়েশিয়া কোন কাজের বেতন বেশি
  • মালয়েশিয়ায় কোন কাজের চাহিদা বেশি
  • মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য মেডিকেল করতে কত টাকা লাগে
  • মালয়েশিয়া যাওয়ার পদ্ধতি
  • মালয়েশিয়া যাওয়ার খরচ
  • মালয়েশিয়া যাওয়ার এজেন্সি
  • মালয়েশিয়া যেতে কত বয়স লাগে
  • মালয়েশিয়া যাওয়ার আবেদন

মালয়েশিয়া যাওয়ার পদ্ধতি ও উপায়

বাংলাদেশ থেকে হাজার হাজার শ্রমিক মালয়েশিয়া গমন করে। তাদের মত অনেকেই জানে না যে যাওয়ার জন্য কি কি প্রয়োজন হয় অথবা মালয়েশিয়া যাওয়ার পদ্ধতি সমূহ কি কি?

  • আপনাকে আপনার ইউনিয়ন পরিষদের তথ্য কেন্দ্রে যে শ্রম মন্ত্রণালয়ের নির্দিষ্ট সাইটে নিবন্ধন করতে হবে। নিবন্ধনের জন্য আপনাকে তিন দিন সময় দিতে হবে। এবং আপনাকে নিজে উপস্থিত থাকতে হবে্
  • আপনার বয়স ১৮ – ৪৫ বছরের মধ্যে হতে হবে। ২৫ – ৫০ উত্তোলনের ক্ষমতা থাকতে হবে। এবং আপনার উচ্চতা ৫ ফুট হতে হবে।
  • অতএব আপনার নিবন্ধনের নোটিশটি শ্রম মন্ত্রণালয় ওয়েব সাইটে পাওয়া যাবে। সেখান থেকে নিবন্ধনটি তুলে রাখতে হবে।
  • অতঃপর নির্বাচিত ব্যক্তিদের মোবাইলে এসএমএস এর মাধ্যমে জানানো হবে। এবং সেই এসএমএস এর সকল তথ্য জানানো হবে। 
Read More  গ্রামীণফোন জরুরি ব্যালেন্স: Grameenphone Emergency Balance

মালয়েশিয়া যাওয়ার খরচ

আমাদের মধ্যে অনেকেই জানে না যে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার খরচ কত পরে। এখন আমি আপনাদের মাঝে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ জানানোর পাশাপাশি সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার খরচ কত সে সম্পর্কে জানাবো।

বাংলাদেশ প্রবাসী কল্যাণ ও বিদেশী কর্মী সংস্থান মন্ত্রণালয়ের এক বিজ্ঞপ্তি থেকে জানা যায় সরকারি মালয়েশিয়া যেতে হলে খরচ ৮০ হাজার থেকে ০১ লক্ষ টাকার মত।

দেশের অভ্যন্তরে বিভিন্ন পরীক্ষা নিরীক্ষার জন্য আপনার এটা খরচ হতে পারে। অন্যদিকে বিমান ভাড়া এবং মালয়েশিয়ার প্রবেশ করবে বিভিন্ন ধরনের খরচ মালয়েশিয়ার সরকার বহন করে। সুতরাং আমাদের সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ এর পাশাপাশি মালয়েশিয়া যাওয়ার খরচ কত এ সম্পর্কে জ্ঞান থাকা প্রয়োজন।

মালয়েশিয়া রাজধানীর নাম কি

শুধু সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ জানলে হবে না সেই সাথে আপনাকে মালয়েশিয়ার রাজধানীর নাম কি সেটাও জেনে রাখার প্রয়োজন। কেননা আপনি যে দেশে আপনার জীবিকার উদ্দেশ্যে যাচ্ছে আপনার সেই দেশের রাজনীতি সম্পর্কে একটা ধারণা অবশ্যই প্রয়োজন। আজ আমরা আপনাদের মালয়েশিয়ার রাজধানীর নাম জানাবো।

 মালয়েশিয়ার রাজধানীর নাম হলো – কুয়ালালামপুর, আর প্রশাসনিক রাজধানী বলা হয় পুত্রাজা কে।

বাংলাদেশ থেকে মালয়েশিয়ার দূরত্ব কত কিলোমিটার

এখন আমি আপনাদের জানাবো বাংলাদেশ থেকে মালয়েশিয়ার দূরত্ব কত কিলোমিটার। কেন না আপনাকে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ এর পাশাপাশি বাংলাদেশ থেকে মালয়েশিয়ার দূরত্ব কত কিলোমিটার সম্পর্কে একটা ধারণা থাকা প্রয়োজন। চলুন জেনে নেয়া যায়। বাংলাদেশ থেকে মালয়েশিয়ার দূরত্ব হলো ০৩ হাজার ৭৪৫ কিলোমিটার

মালয়েশিয়া কোন কাজের বেতন বেশি

এখন আমরা আপনাদের মাঝে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ এর পাশাপাশি আলোচনা করব মালয়েশিয়া কোন কাজের বেতন বেশি এ সম্পর্কে।কারণ আপনার যদি মালয়েশিয়া কোন কাজের বেতন বেশি এ সম্পর্কে একটা ধারণা থাকে তাহলে আপনি সহজে আপনি আপনার সুবিধামতো কাজ বাছাই করে নিতে পারবেন। এবং ভালো টাকা আয় করতে পারবেন।

বাংলাদেশ থেকে বা অন্যান্য রাষ্ট্র থেকে যে সকল শ্রমিক কাজের জন্য মালয়েশিয়া যায় তাদের জন্য সবচেয়ে বেশি বেতন দেয় ইলেকট্রিশিয়ান, হোটেল, ড্রাইভিং এর সেকশনের কাজগুলোতে। যেমন একজন ইলেকট্রিশিয়ানের বেতন বাংলাদেশী হিসাবে ৮০ হাজার থেকে ১ লক্ষ টাকা পর্যন্ত।

মালয়েশিয়ায় কোন কাজের চাহিদা বেশি

মালয়েশিয়ায় কোন কাজের চাহিদা বেশি এ সম্পর্কে আপনার আপনার একটা ধারনা রাখা উচিত। কেননা আপনি যখন মালয়েশিয়া কাজের উদ্দেশ্যে যাবেন তখন আপনাকে অবশ্যই জানতে হবে মালয়েশিয়ায় কোন কাজের চাহিদা বেশি। কারন যে কাজে চাহিদা নেই আপনি সেই কাজে গেলে আপনি কোন উন্নতি করতে পারবেন না। অর্থাৎ তেমন কোন টাকা কামাই করতে পারবেন না।তো চলুন দেখে নেয়া যাক মালয়েশিয়ায় কোন কাজের চাহিদা বেশি সে সম্পর্কে।

Read More  তরমুজের উপকারিতা ও অপকারিতা - কিডনি রোগী কি তরমুজ খেতে পারবে

পামওয়েল গাছের বাগানে কাজ, ড্রাইভিং, কনস্ট্রাকশন এবং ওয়েল্ডিং, পাওয়ার জন্য। এই সকল সেকশনে মালয়েশিয়ায় কোন কাজের চাহিদা বেশি।সুতরাং আপনাকে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ এর পাশাপাশি মালয়েশিয়া কোন কাজের চাহিদা বেশি সে সম্পর্কে জানা প্রয়োজন।

মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য মেডিকেল করতে কত টাকা লাগে

সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ এর পাশাপাশি আপনাকে মালয়েশিয়া যেতে হলে মেডিকেল করতে কত টাকা লাগবে সে সম্পর্কে ধারনা থাকতে হবে। মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য মেডিকেল টেস্ট বর্তমানে বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। মেডিকেল টেস্ট বাধ্যতামূলক করার কারণ, আপনি যদি দেশ থেকে মেডিকেল টেস্ট না করেন। পরবর্তীতে আপনি যখন মালয়েশিয়া যাবেন তখন আপনাকে মেডিকেল টেস্ট করা হবে। সেই টেস্টে আপনার যদি কোন সমস্যা ধরা পড়ে তাহলে আপনাকে দেশে ফিরিয়ে দেবে। তাই এই ঝামেলার আগের থেকেই সমাধান করার জন্য। 

আপনাকে দেশ থেকে মেডিকেল করা বাধ্যতামূলক নিয়ম করা হয়েছে। তবে আমরা অনেকেই জানি না যে মেডিকেল টেস্ট করাতে আসলে কত টাকা লাগে। তা আমরা এই আলোচনার মাধ্যমে আপনাদের মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য মেডিকেল করতে কত টাকা লাগে। তাহলে চলুন দেখে নেয়া যাক মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য মেডিকেল করতে কত টাকা লাগে। 

মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য মেডিকেল করতে আপনার ৮.৫০০ টাকা খরচ হবে। এক্ষেত্রে অল্প কিছু কম ও বেশি হতে পারে। আপনি চাইলে মেডিকেল নিজেও করতে পারেন। আবার আপনি চাইলে মেডিকেল যেই এসেন্সির মাধ্যমে যাচ্ছেন সেই এজেন্সির মাধ্যমে মেডিকেল পড়াতে পারেন। 

তাই আপনাকে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪, এর সাথে মেডিকেল খরচ সম্পর্কে আপনার একটা মোটামুটি ধারণা রাখা খুবই প্রয়োজনীয়।

মালয়েশিয়া যাওয়ার এজেন্সি

আপনারা যারা মালয়েশিয়া যাবেন চাকরির উদ্দেশ্যে। তাদের মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য বিভিন্ন ধরনের এজেন্সি রয়েছে। তবে এক্ষেত্রে আপনাকে যাচাই-বাছাই করে নিতে হবে যে কোন এজেন্সি ভালো এবং কোন এজেন্সির মাধ্যমে গেলে আপনি প্রতারিত হবেন না। সুতরাং আপনাকে এ বাংলাদেশ থেকে মালয়েশিয়া যাওয়ার যে সকল এজেন্সি রয়েছে সে সকল এজেন্সির মধ্যে মধ্য থেকে আপনাকে ভালো একটা এজেন্সি খুজে নিতে হবে। যে এসএম এর মাধ্যমে আপনি অল্প সময়ের মাধ্যমে মালয়েশিয়া যেতে পারবেন এবং কোন প্রতারিত হওয়ার আশা থাকবে না। 

Read More  Book fair paragraph in Bengali – বইমেলা রচনা

মালয়েশিয়া যেতে কত বয়স লাগে

আপনাকে সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ এর সাথে যে বিষয়টা জানা খুবই প্রয়োজন সেটা হচ্ছে আপনার বয়স। আমাদের মধ্যে অনেকেই জানিনা যে মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য কত বয়স প্রয়োজন। এখন আমি আপনাদের জানাবো মালয়েশিয়া যেতে হলে কত বয়স লাগে।

  • আপনি যদি কর্মী হিসেবে মালয়েশিয়া যেতে চান তাহলে আপনার বয়স সর্বনিম্ন ২১ বছর হতে হবে। 
  • আপনি যদি স্টুডেন্ট ভিসায় মালয়েশিয়া যেতে ইচ্ছুক তাহলে আপনাকে সর্বনিম্ন ১৮ বছর হতে হবে।

মালয়েশিয়া যাওয়ার আবেদন

আপনি যদি মালয়েশিয়া যেতে ইচ্ছুক হন সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ এর সাথে আপনাকে যে বিষয়টা সবচাইতে বেশি গুরুত্ব দিতে হবে অর্থাৎ যে বিষয়টা সম্পর্কে আপনাকে ধারণা অবশ্যই রাখতে হবে সেটা হলো মালয়েশিয়া যাওয়ার আবেদন সম্পর্কে। চলুন দেখে নেয়া যাক মালয়েশিয়া যাওয়ার আবেদন পদ্ধতি। 

মালয়েশিয়া যাওয়ার জন্য যে বিষয়টি আপনাকে সর্বপ্রথম জানতে হবে সেটা হলো মালয়েশিয়া ভিসার আবেদন বা যাওয়ার আবেদন। আপনি যে উদ্দেশ্যে যান আপনাকে প্রথম ভিসার জন্য আবেদন করতে হবে। আপনাকে অনলাইনে মাধ্যমে মালয়েশিয়া যাওয়ার আবেদন করতে হবে। অনলাইনে আব্দুল করার পরে আপনাকে একটা ফর্ম দেয়া হবে। অতঃপর সেই ফরম ডাউনলোড করবেন। তারপর আপনাকে মেইন ফর্মটি পূরণ করতে হবে। পূরণ করার পরে আপনাকে ফটোকপি করে এক কপি নিজের কাছে রেখে দিতে হবে। তারপর সেই আবেদন ফরমটি নিয়ে ভিসা অফিসে যেয়ে সঠিক সময়ে জমা দিতে হবে। 

তারপরে আপনাকে একটা বৈদ্যুতিক আবেদন পত্র পূরণ করতে হবে। তারপরে আপনাকে সেই পূরণ করার ফর্মটি বার কোডের মাধ্যমে যুক্ত করে নিতে হবে। এবং ফটোকপি করে এক কফি নিজের কাছে রেখে দেবেন। আপনার আবেদন করা ব্যক্তিগত ভিসা সম্পর্কে গোপনীয়তা মেনে চলুন। এর সাথে আপনাকে একটি সম্মতি মূলক ফরম পূরণ করতে হবে। অতঃপর আপনাকে ভিসা সম্পর্কে সকল প্রকার গোপনীয়তা বজায় চলতে। সুতরাং আপনাকে ভিসা সম্পর্কে সকল তথ্যগুলো সঠিক দিয়ে আবেদন ফরমটি সঠিকভাবে পূরণ করতে হবে। তারপরে সাবমিট করতে হবে । 

পরিশেষে 

উপরে উল্লেখিত সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ এর পাশাপাশি মালয়েশিয়া চাকরির সাথে সম্পর্কিত সকল বিষয় নিয়ে আলোচনা করেছি। যাতে করে আপনারা এখান থেকে একটি পরিপূর্ণ ধারণা নিতে পারেন।আশা করি, উপরে উল্লেখিত আলোচনা থেকে আপনারা সরকারিভাবে মালয়েশিয়া যাওয়ার উপায় ২০২৪ এর সাথে সম্পর্কিত সকল বিষয় আপনারা জানতে পেরেছেন। 

তবে আপনারা যে কোন এজেন্সির মাধ্যমে যাওয়ার সময় সতর্কতা অবলম্বন করবেন। কেননা অনেক সময় প্রতারিত হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এবং দালাল চক্রের কাছ থেকে দূরে সরে থাকবেন।

Leave a Comment