কিভাবে ইউটিউব ভিডিও বানাবো? ইউটিউব ভিডিও বানানোর উপায়

কিভাবে ইউটিউব ভিডিও বানাবো

কিভাবে ইউটিউব ভিডিও বানাবো প্রশ্নটি সকল ধরনের ইউটিউবারদের মনে প্রথম প্রথম এসে থাকে। বিশেষ করে নতুন ইউটিউবারদের কথা না বললেই নয়। যখন কেউ ইউটিউবের জন্য একটি ভিডিও এর প্লান করে থাকে, তখন স্ক্রিপ্ট লেখা হতে শুরু করে ভিডিও এডিট সহ পাবলিশ ইত্যাদি সম্পর্কে স্টেপ বাই স্টেপ তাঁর নিকট স্পষ্ট একটি ধারণা থাকা অপরিহার্য। কিন্তু এই একুশ দশকে এসে আমরা এসব চিন্তিত বিষয়গুলোকে কিছুটা হলেও স্কিপ করতে পেরেছি। কেননা বর্তমানে তথ্য ও প্রযুক্তির ব্যাপক উন্নয়ন সাধন হয়েছে। মার্কেটে তথা অনলাইনে রয়েছে হাজার হাজার কার্যকারী ভিডিও তৈরি বা ম্যাকিং টুলস বা সফটওয়্যার। এগুলো ব্যবহার করার মাধ্যমে এখন যে কেউ অল্প সময়ের মধ্যে খুব সহজেই একটি হাই রেজুলেশন ও উন্নত কোয়ালিটির ভিডিও তৈরি করে ফেলতে পারে।

বর্তমানে ইউটিউব ভিডিও বানানোর উপায় খুব সহজ হয়ে গিয়েছে। এখানে জাস্ট আপনাকে আপনার নিশ অনুযায়ী ভালো ও আকর্ষণীয় একটি ভিডিও প্লানিং করতে হবে। তারপর এডিটের কাজের জন্য রয়েছে অনেকগুলো এডিটিং দরকারী  মোবাইল অ্যাপস বা সফটওয়্যার। এখন আপনাকে আর জিজ্ঞাস করতে হবে না যে ইউটিউব ভিডিও কিভাবে সুন্দর করে বানাবো অথবা কিসের মাধ্যমে খুব সহজ উপায়ে ইউটিউব ভিডিও বানাবো।

ইন্টারনেটে এই বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য রয়েছে পাশাপাশি আপনার নিশ অনুযায়ী হাজারো তথ্য রয়েছে। আর আজকের আর্টিকেলে আমরা আপনাকে জ্ঞাত করবো ইউটিউবের ভিডিও তৈরির প্রথম ধাপ হতে সর্বশেষ ধাপ পর্যন্ত সকল তথ্য সরবরাহ করে। সুতরাং আপনি যদি সত্যিই জানতে চান যে, কিভাবে একজন বিগেইনার বা নতুন ইউটিউবার সুন্দর করে ইউটিউব ভিডিও বানাবে অথবা ইউটিউব ভিডিও বানানো সঠিক উপায়গুলো কি কি, তাহলে সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি আপনি মনোযোগ সহকারে পড়ুন। আশা করি সম্পূর্ণ ডিটেইলস আপনি এখান থেকে পেয়ে যাবেন। ( ইউটিউব থেকে আয় করার পদ্ধতিইউটিউব ভেরিফাই করার নিয়ম জেনে নিন )

ইউটিউব ভিডিও বানানোর উপায়

ইউটিউব ভিডিও বানানোর উপায়

একজন ইউটিউবার যদি তাঁর ইউটিউব চ্যানেলের জন্য একটি চমৎকার ভিডিও মেইক করতে চায়, তাহলে সর্বপ্রথম তার কর্তব্য কি? অবশ্যই তাঁর সর্বপ্রথম কর্তব্য হলো একটি সঠিক ও সহজ নিশ সিলেক্ট করা। এরপর এর ধারাবাহিক কাজগুলো হলো-

  • ভিডিও এর নিশ সিলক্ট করা
  • নিশ অনুযায়ী সহজ কিওয়ার্ড রিচার্স করা
  • সঠিক ও সাবলিলভাবে স্ক্রিপ্ট লিখা
  • এরপর সে অনুযায়ী ভিডিও রেকর্ড করা অথবা ফুটেজ রেডি করা
  • এবার ভিডিও এডিট করা
  • সর্বশেষ সঠিকভাবে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করা
Read More  টাকা ইনকাম করার অ্যাপ - app for income money

উপরোক্ত নিয়মগুলো অনুসরণ করার মাধ্যমে একজন ইউটিউবার খুব সহজেই তাঁর চ্যানেলের জন্য সুন্দর একটি ভিডিও তৈরি করতে পারে। এখন আমরা উল্লেখিত বিষয়গুলো নিয়ে বিস্তারিত জানার চেষ্টা করবো। তাহলে চলুন, আলোচনা দীর্ঘায়িত না করে জানা যাক, কিভাবে ইউটিউব ভিডিও বানাবো সে সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যাক।

ভিডিও এর নিশ সিলক্ট করা – Select a Correct Niche

একজন নবীন ইউটিউবারের সর্বপ্রথম কর্তব্য হচ্ছে একটি সঠিক ও সহজ নিশ খুঁজে বের করা। এটা আপনি খুব সহজেই ইন্টারনেট ঘাটাঘাটির মাধ্যমে পেয়ে যাবেন। নিশ সম্পর্কে সংক্ষেপে একটি ধারণা দেওয়া যাক। আপনি যে টপিক নিয়ে ভিডিও তৈরি করবেন, সেটিই মূলত নিশ। এখন যদি আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানলে প্রতিনিয়ত খাবার রেসিপি নিয়ে ভিডিও তৈরি করে আপলোড দেন, তাহলে আপনার চ্যানেলের নিশ হচ্ছে ফুড বা খাদ্য নিশ। একই ভাবে যদি আপনি কিভাবে মাছ ধরতে হয়, সে বিষয়ে ভিডিও মেইক করে থাকেন, তাহলে আপনার চ্যানেলের নিশ হচ্ছে ফিশিং। আশা করি সংক্ষিপ্তে নিশ সম্পর্কে ভালো একটি আইডিয়া পেয়েছেন। যদি আরো জানতে চান, তাহলে আমাদের পূর্ববর্তী ইউটিউব রিলেটেড পোস্টগুলো দেখতে পারেন অথবা ডিজিটাল মার্কেটিং রিলেটেড।

নিশ অনুযায়ী সহজ কিওয়ার্ড রিচার্স করা – Keyword Research based on Niche

পরের ধাপ হচ্ছে আপনার নিশ অনুযায়ী অনেকগুলো ভিডিও এর জন্য বা এই মূহর্তে যে ভিডিও তৈরি Make youtube video করতে চান, সেই টপিক সম্পর্কিত কিওয়ার্ড বের করা।  এই ক্ষেত্রে অবশ্যই কিওয়ার্ডটি হতে হবে সহজ ও রেংকএবল। যাতে ভিডিও আপলোড upload video করার সাথে সাথেই আপনার ভিডিও রেংক করে। এতে করে ভিডিও ভাইরাল হওয়ার সম্ভাবনা বেশ অনেক। সুতরাং তাহলেই বোঝাই যাচ্ছে যে, একটি চ্যানেলকে হাইলাইট করার জন্য ভিডিও ভাইরাল করা কতটা জরুরি। আবার একই ভাবে একটি ভিডিও কে ভাইরাল করতে সময়োপযুগী, সঠিক ও সহজ কিওয়ার্ডের বিকল্প আর কিছু নেই। সুতরাং আপনাকে নিশ অনুযায়ী সহজ কিছু কিওয়ার্ড বের করতে হবে।

সঠিক ও সাবলীলভাবে স্ক্রিপ্ট লিখা – Write a script

যদি আপনি ইতিমধ্যে নিশ ও সঠিক কিওয়ার্ড সিলেক্ট করতে পেরে থাকেন, তাহলে আপনার জন্য পরবর্তী কাজ হলো সঠিক ও সাবলীলভাবে একটি স্ক্রিপ্ট লেখা। আপনার ভিডিওতে কি প্রেজেন্ট করবেন এবং কোন কোন তথ্যগুলো ভিডিওতে সংযুক্ত করবেন, তার একটি পরিষ্কার ধারণার জন্য স্ক্রিপ্টের বিকল্প কিছু নেই। অনেকে স্ক্রিপ্ট ছাড়াই ভিডিও মেইক করে ফেলে। তাদের অধিকাংশই হলো অভিজ্ঞ ইউটিউবার। যারা অনেক দিন যাবত ইউটিউবিং করছে। তাদের জন্য ব্যাপারটি সহজ হওয়ার কথা। কেননা অনেকদিন যাবত ভিডিও মেইক করে তাদের অভ্যস্ত হয়ে গেছে।

Read More  ওয়ালটন চার্জার ফ্যানের দাম ২০২৪

কিন্তু প্রাথমিক অবস্থায় একজন ভিডিও মেইকারকে অথবা ইউটিউবারকে এই বিষয়টি খুব সতর্কতার সাথে মাথায় নিয়ে কাজ করতে হবে। ভিডিওতে যেন কোনো ভুল তথ্য না যায় এবং প্রেজেন্টেশন যাতে চমৎকার হয়, সে বিষয়টিকে মাথায় রেখে কাজ করতে হবে। আর উক্ত কাজগুলো সূক্ষ্মভাবে করতে হলে স্ক্রিপ্টিং এর ভূমিকা অপরিহার্য।

ভিডিও রেকর্ড করা অথবা ফুটেজ রেডি করা – Record your focus video

উপরোক্ত সমস্ত কাজ যদি সম্পাদন করে থাকেন, তাহলে এবার আপনার কাজ হলো সুন্দরভাবে স্ক্রিপ্টিং অনুযায়ী ভিডিও রেকর্ড করা অথবা ছোট ছোট কয়েকটি ভিডিও ফুটেজ রেডি করা। এখন প্রশ্ন আসতে পারে কিভাবে একটি সুন্দর ভিডিও ফুটেজ তৈরি করা যায়? এই ব্যাপারে ইউটিউবে বিস্তারিত অনেকগুলো ভিডিও রয়েছে। সুতরাং কারো যদি এই বিষয়ে কোনো রকম তথ্য প্রয়োজন হয়, তাহলে দয়া করে আরো বিস্তারিত জানার জন্য আপনি ইউটিউবে সার্চ করতে পারেন।

প্রাথমিক অবস্তায় একজন বিগেইনারের কয়েকভাবে ভিডিও রেকর্ড করা লাগতে পারে। কেননা এভাবে কয়েকটি রেকর্ড করার পর বিগেইনার শিখে ফেলবে কিভাবে সুন্দর করে ভিডিও রেকর্ড করা যায়। সুতরাং, সর্বশেষ তাহলে বলা যায় যে, সঠিক ভাবে ভিডিও রেকর্ড করাও একজন ইউটিউবারের জন্য বেশ গুরুত্বপূর্ণ কাজ।

এবার ভিডিও এডিট করা – Edit your recorded video

যদি সঠিকভাবে ভিডিও রেকর্ডিং Recording Video করে থাকেন, তাহলে এবার আপনার কাজ হচ্ছে অত্যন্ত সুন্দরভাবে রেকর্ডকৃত ভিডিওগুলো ইডিট করা। এখন এই ক্ষেত্রে আপনি বিভিন্ন ধরনের সফটওয়্যারে হেল্প বা সাহায্য নিতে পারেন। ইন্টারনেটে বর্তমানে অনেক ধরনের ভিডিও এডিটিং সফটওয়্যার রয়েছে। ইউটিউব ভিডিও বানানোর উপায় হিসেবে ইন্টারনেট অনেকগুলো অ্যাপস বা সফটওয়্যার YouTube Video Software রয়েছে। এগুলোর মধ্যে বেশ কিছুর নাম এখানে উল্লেখ করা হলো-

  • Camtasia
  • Kinemaster
  • Pinnacle Studio
  • Filmora 9
  • Vegas Pro 17
  • DaVinci Resolve
  • Adobe Premiere Pro

উপরোক্ত ভিডিও তৈরির অ্যাপসগুলোর যেকোনো একটির মাধ্যমেই একজন ইউটিউবার তাঁর রেকর্ডেড ভিডিওগুলোর এডিট Video Editing খুব সুন্দরভাবে করতে পারে।

যদি আপনি ভিডিও এডিটিং এ সম্পূর্ণ নতুন হয়ে থাকেন, তাহলে আপনি ক্যামতাসিয়া Camtasia software সফটওয়্যাটিকে ফলো করতে পারেন। কেননা বিগেইনারদের জন্য এটি বেশ সহজবোধক ও ফ্রী একটি টুলস। চাইলে আপনিও ব্যবহার করতে পারেন। পরিশেষে বোঝাই গেল যে, যে রেকর্ডেড ভিডিওগুলো রয়েছে, সেগুলোকে আপনার সঠিক ও সুন্দর ও প্রিমিয়াম কোয়ালিটেতে ইডিট করতে হবে।

Read More  ফেসবুক ভেরিফাই করার নিয়ম | ভেরিফাই করার সুবিধাগুলো

ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করা – Upload your Edited video on YouTube

কিভাবে ইউটিউব ভিডিও বানাবো এর সর্বশেষ স্টেপ হলো এটি। এই পর্যায়ে আপনাকে তৈরিকৃত ভিডিওটিকে আপলোড করতে হবে ইউটিউবে। এই মূহর্তে যদি আপনি ইউটিউবের জন্য ভিডিও এর এডিট শেষ করে থাকেন, তাহলে এখন আপনি সুন্দর করে এবং সঠিকভাবে ভিডিও আপলোড করবেন ইউটিউবে। আপনি কি জানেন, কিভাবে ইউটিউবে ভিডিও YouTube Video আপলোড করতে হয়? যদি না জেনে থাকেন, তাহলে আমাদের একটি আর্টিকেল রয়েছে এই বিষয়ে। সেই আর্টিকেলটি পড়তে পারেন।

ঠিক এভাবে ধীরে ধীরে এবং ধারাবাহিকভাবে নিয়মিত ইউটিউব চ্যানেলে YouTube Channel ভিডিও আপলোড করে যাবেন, আপলোডকৃত ভিডিওগুলোর মধ্য থেকে যেকোনো একটি ভিডিও ভাইরালের মাধ্যমে আপনার চ্যানেল এবং ভিডিও এর ভিও বাড়বে এবং আপনি ইউটিউব থেকে ইনকাম করতে পারবেন।

ইউটিউব ভিডিও বানানোর উপায় নিয়ে শেষ কথা

আমরা যারা যারা নতুন ইউটিউবার রয়েছি, বিশেষ করে তাঁরা উক্ত সমস্যাগুলোতে পতিত হই। আর থেকে রেহাই বা মুক্তি পাওয়ার উদ্দেশ্যে অনেকে অনেক কাজ করে থাকি। কিন্তু যখন একজন সম্পূর্ণ নতুনভাবে একটি ইউটিউব চালনা করতে চায় বা শুরু করতে চায়, তখন তাঁর নিকট অবশ্যই একটি পরিষ্কার জ্ঞান থাকা উচিত যে, কিভাবে সে ইউটিউব ভিডিও বানাবে। এছাড়াও ইউটিউব ভিডিও বানানোর ভিন্ন ভিন্ন উপায় সম্পর্কেও তাঁর সম্মুখ জ্ঞান থাকা একান্ত উচিত। আর এরই প্রেক্ষিতে আজকের আর্টিকেলের সম্পূর্ণ পার্টে আমরা উল্লেখিত বিষয়গুলো নিয়েই আলোচনা করেছি। যদি কোনো ব্যক্তি নতুন করে ইউটিউব শুরু করতে চায় পূর্ব উল্লেখিত কোনো জ্ঞান ছাড়া, তাহলে আশা করি উপরোক্ত বিষয় ও তথ্যগুলো দ্ধারা সে বেশ ভালোভাবে উপকৃত হতে পারে।

আমাদের মধ্যে যারা ইতিমধ্যে ইউটিবিং করছি কিন্তু তাদের ভিডিওতে কোনো রকম কোয়ালিটি নিয়ে আসতে পারছি না, তাদের জন্য উক্ত আর্টিকেলটি কাজে দিবে। তাঁরাও উপরোক্ত তথ্যগুলো থেকে উপকৃত হতে পারে। অর্থাৎ সার্বিকভাবে বললে একজন নতুন ইউটিউবারের প্রাথমিক প্রশ্ন তথা কিভাবে ইউটিউব ভিডিও বানাবো কিংবা ইউটিউবের ভিডিও বানানোর ‍উপায় সম্পর্কিত প্রশ্নের উত্তরগুলো আজকের আর্টিকেলের মাধ্যমে সে পেয়ে যাবে। যা দ্ধারা আশা করা যায় যেকোনো ইউটিউবার উপকৃত হবে।

ইউটিউব ভিডিও বানানোর উপায় সম্পর্কে আরো জানতে

Leave a Comment