কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না

আজ আমরা আলোচনা করব কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না (eligibility of BGB job)? সেই সম্পর্কে । আপনি যদি কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না  এই সম্পর্কে জানতে চান! তাহলে আমাদের আজকের আর্টিকেলটি আপনার কাজে লাগবে অথবা আপনি পড়তে পারেন। কি কি সমস্যা থাকলে জব হয় না, তার জন্য আরও কিছু বিষয় লক্ষণীয় দিক রয়েছে। যেমন- ফৌজদারি মামলা থাকলে, উচ্চতা এবং ওজন ঠিক না থাকলে, মাধ্যমিক এবং উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষায় সম্ভব জিপিএ না পেলে, বিবাহিত হলো, সাঁতার না জানা থাকলে, কাগজ পত্রে ভুল থাকলে, বয়স ২৩ এর বেশি হলে ইত্যাদি। আজকের আর্টিকেলে আমরা কি কি সমস্যা থাকলে এইজব হয় না এই বিষয়গুলো নিয়ে আপনাদের সামনে উপস্থিত হয়েছি। কি কি সমস্যা থাকলে এই জব হয় না, এই সম্পর্কে জানতে আমাদের আজকের আর্টিকেলটি পড়তে থাকুন। 

বাংলাদেশ বিজিবিতে বর্তমানে অনেক নিখুঁতভাবে যাচাই বাছাই করে শিক্ষিত যুবক ছেলে ভর্তি করে! আগে এক সময় ছিল যখন বিজিবিতে এত বেশি যাচাই-বাছাই করা হতো না! ১৯৭১ সালে বাংলাদেশ স্বাধীনতার পর বর্ডার গার্ডের প্রয়োজন হয়! ১৯৭২ সালে বিডিআর প্রতিষ্ঠিত হয়। আর বিডিআর থেকেই ২০০৯ সালে বাংলাদেশে বিজিবি নামকরণ হয়েছিল! ভবিষ্যৎময় স্বপ্নের এই বিজেপিতে যোগদান করার জন্য কিছু রুলস এবং রেগুলেশন ফলো করতে হয়

এখন নিচে আলোচনা করব কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না?

নামে ফৌজদারি মামলা থাকলে

কি কি সমস্যা থাকলে এই চাকরি হয় না এর প্রথম কারণ হলো আপনার নামে যদি ফৌজদারি মামলা থাকে।

ডিফেন্সের এর সকল সেক্টরে তথা সেবাবাহিন, পুলিশ, বিজিবি তে যদি কোনো ফৌজদারি মামলা থাকে, তাহলে চাকরি হয়না! কারো নামে যদি মামলা থাকে তাহলে সে যে কোনো মুহূর্তে গ্রেফতার হতে পারে। এজন্য কারো নামে মামলা থাকলে বিজেপির চাকরি হয় না।

ফৌজদারি মামলা বলতে বোঝায়;  খুবই গুরুতর বা কঠিন ধরনের অপরাধ। যেমন- হত্যা, ধর্ষণ, চুরি, ডাকাতি ছিনতাইসহ আরো কঠিন মামলা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না।

উচ্চতা ও ওজন ঠিক না থাকা

কি কি সমস্যা থাকলে এই চাকরি হয় না, তার দ্বিতীয় কারণ হলো উচ্চ উচ্চতা ও ওজন ঠিক না থাকা !বাংলাদেশ বিজিবিতে চাকরি পেতে হলে উচ্চতা কমপক্ষে ৫ ফিট ৬ ইঞ্চি লাগবে। আপনার ওজন এবং উচ্চতা ঠিক না থাকে, তাহলে আপনার এই জব হবে না! তাই বিজেপির মাঠে যাওয়ার আগে আপনার উচ্চতা ওজন সঠিক আছে কিনা তা যাচাই করে যাবেন! কি কি সমস্যা থাকলে বিজেপির জব হয় না, এগুলো না জেনে বিজিবির মাঠে যাবেন না।

Read More  সরকারি ব্যাংকে চাকরির শিক্ষাগত যোগ্যতা

তাই কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবির চাকরি হয় না, এটা প্রত্যেকের জানা বাধ্যতামূলক বলে আমি মনে করি।

বিবাহিত হলে

কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না এর চতুর্থ কারণ যদি কেউ বিবাহিত হয়! বিজিবিসহ বাংলাদেশের অন্যান্য বাহিনীতে সৈনিক পদে ভর্তি হওয়ার জন্য অবশ্যই অবিবাহিত হতে হয়! যদি আপনি বিবাহিত হোন, তাহলে আপনার বিজেপিতে আবেদন করবেন না! কারণ বাংলাদেশ বিজিবি সিপাহি চাকরির অন্যতম শর্ত হলো অবিবাহিত হতে হবে! কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবিত জব হয় না  তার মধ্য এটি অন্যতম একটি বিষয়।

সাঁতার না জানা

কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না তার পঞ্চম কারণ হলো সাঁতার না জানা! বিজিবিতে চাকরি নিতে হলে অবশ্যই আপনাকে সাঁতার জানতে হবে! বিজিবি ছাড়াও অন্যান্য বাহিনীতে সাঁতার জানা বাধ্যতামূলক! তার কারণ একজন সৈনিককে অনেক সময়  প্রতিকূল পরিবেশের মুখে পড়তে হয়! আর সেই প্রতিকূল পরিবেশ থেকে নিজেকে বাঁচানোর জন্য সাঁতার জানা আবশ্যক।সমস্যা থাকলে এই চাকরি হয় না তার মধ্যে এটি একটি অন্যতম বিষয়।

  নাকের সমস্যা

কি কি সমস্যা থাকলে এই চাকরি হয় না তার ষষ্ঠ কারণ হলো নাকের সমস্যা! আমাদের মধ্যে অনেকেই নাকের বিভিন্ন সমস্যায় ভোগেন। যেমন-

নাকের মাংস  বা বাঁকা হাড়ের সমস্যা অর্থাৎ, টিএনএস! যদি আপনার নাকে টিএনএস এর সমস্যা থাকে তাহলে বিজিবির চাকরি আপনার হবে না।

গভীর কাঁটা দাগ

কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না এর সপ্তম কারণ হলো শরীরের কোন জায়গায় গভীর  কাঁটা দাগ! যদি আপনার শরীরে পুরানো বা নতুন গভীর কাটার দাগ থাকে তাহলে আপনি  বিজিবি থেকে বাদ যাবেন! কারণ শরীরের কোথাও কাটা বা সেলাই থাকলে অনেক সময় সেখানে ইনফেকশন হয়! আর দুর্গম কোন জায়গায় অনেক সময় সৈনিকদের সাথে মেডিকেল টিম থাকে না। এজন্য শরীরের বিভিন্ন জায়গায় কাটা দাগ বা সেলাই থাকলে তাকে  বিজিবিতে এলাও  করে না।

হাত ঘামলে

কি কি সমস্যা থাকলে এই চাকরি হয় না, তার আরেকটি কারণ হলো অতিরিক্ত হাত ঘামা! আমাদের মধ্যে অনেকেরই হাত ঘামে কিন্তু এমন অনেক লোক আছে যাদের অনেক বেশি হাত ঘামে! মূলত এটি একটি রোগ যার কারণে আপনি সেনাবাহিনী থেকে বাদ পড়তে পারেন। সেনাবাহিনী, পুলিশ ,বিজিবি সহ সকল ডিফেন্সের এর জন্য হাত ঘামা একটি বড়ো সমস্যা। এই সমস্যা থাকলে সেনাবাহিনীর মাঠ থেকে বাদ দেয়া হয় এবং পুলিশের মাঠ থেকেও বাদ দেয়া হয়

Read More  বেতন মওকুফের জন্য আবেদন

এমন অনেক লোক আছে যারা লিখিত পরীক্ষা দেওয়ার সময়, নিজের হাতের অতিরিক্ত ঘামের কারণে পরীক্ষার খাতা ভিজিয়ে ফেলে! তাই আপনার যদি এরকম কোনো অসুখ থাকে তাহলে সেটা দ্রুত ভালো করার চেষ্টা করুন।কারণ হাত ঘামলে বিজিবির চাকরি নাও হতে পারে।

অতিরিক্ত তোতলা

সমস্যা থাকলে বিজিবি জব হয় না তার একটি কারণ হলো অতিরিক্ত তোতলা।হাস্যকর হলেও সত্যি অতিরিক্ত তোতলা হলে এই চাকরি হয় না। সৈনিক অতিরিক্ত তো দোতলালে বিজিবিতে তাকে অযোগ্য বলে গণ্য করা হয়। সুতরাং বিজেপিতে চান্স পেতে হলে অবশ্যই নিজের কথার ধরন বদলাতে হবে অর্থাৎ তোতলামি দূর করতে হবে।

দাঁতের স্থায়ী সমস্যা

কি কি সমস্যা থাকলে এই চাকরি হয় না তার মধ্যে দশম স্থানে রয়েছে দাঁতের স্থায়ী রোগ। কোনো ব্যক্তির যদি দাঁতের সমস্যা থাকে তাহলে বিজিবিতে তার চাকরি হবে না ।আবার দাঁতের মধ্যে যদি গর্ত থাকে এবং দাঁত যদি ভাঙ্গা থাকে, তাহলে বিজিবির মেডিকেল থেকে বাদ যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

জন্ডিস ও যৌ নবা হিত রোগ থাকলে

কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না তার মধ্যে অন্যতম একটি সমস্যা হল জন্ডিস ও যৌনবা হিত রোগ থাকলে। আপনার শরীরে যদি হেপাটাইটিস বি ভাইরাসের কোনো রকম উপস্থিতি থাকে তাহলে আপনি বিজিবির চাকরির ক্ষেত্রে আনফিট বলে গণ্য হবেন। এবং এইডস এর মত যৌ নবা হিত রোগ থাকলে আপনি বিজিবি মেডিকেল থেকে বাদ হয়ে যাবেন। সুতরাং কি কি সমস্যা থাকলে এই চাকরি হয় না, সেগুলো ভালোভাবে জেনে শুনে  বিজিবির মাঠে যাবেন।

ভুল তথ্য দিলে

ভুল তথ্য দিলে

কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না তার মধ্য সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ কারণ হলো ভুল কাগজপত্র জমা দেওয়া। ভুল তথ্য দিলে ,ভুল কাগজপত্র দিলে যে কোনো চাকরি চলে যাবে। হোক সেটা ডিফেন্সের বা সরকারি ব্যাংকে বা বেসরকারি যে কোনো চাকরি। আপনি যদি বিজেপি চাকরির ক্ষেত্রে আবেদনের সময় কোন তথ্য গোপন করেন, তাহলে আপনার বিজেপির চাকরি হবে না। 

Read More  চাকরির জন্য সিভি লেখার নিয়ম - প্রফেশনাল সিভি তৈরির নিয়ম

চাকরির কোন পর্যায়ে যদি প্রমাণিত হয় আপনি ভুল তথ্য দিয়ে চাকরি নিয়েছেন তবে আপনার বিজিবির চাকরি  থেকে বের করে দেবে। 

মাদক সেবনকারী হলে

মাদক সেবনকারী হলে

কি কি সমস্যা থাকলে এই চাকরি হয় না তার মধ্যে অন্যতম আরেকটি কারণ হলো মাদক সেবন করা। আপনি হয়তোবা জানেন সরকার মাদকের জন্য জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করেছেন। তার মানে যে কেউ হোক না কেন মাদক গ্রহণ করলে বা সেবন করলে তার শাস্তি বাধ্যতামূলক। সুতরাং বিজেপিতে চাকরি পেতে হলে মাদক সেবন থেকে দূরে থাকতে হবে।

আপনি যেকোনো ধরনের মাদক সেবন করলে বিজিবির মেডিকেল টেস্টে ধরা পড়ে যাবেন। তাই আমরা মাদক সেবন থেকে দূরে থাকবো।

মাঠে বিশৃঙ্খলা ঘটালে

কি কি সমস্যা থাকলে জব চাকরি হয় না তার মধ্যে একটি হলো মাঠের শৃঙ্খলা নষ্ট করা। আপনি যদি বিজিবির মাঠ চলাকালীন মাঠে কোন রকম বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করেন তাহলে বিজিবির মাঠ থেকে আপনাকে বাদ দেবে। তাই বিজিবি মাঠ চলাকালীন সময় মাঠে অবশ্যই নম্র, ভদ্র এবং শান্তভাবে থাকার চেষ্টা করবেন। কোনোরকম বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি  করবেন না।

বয়স ২৩ এর বেশি হলে

কিরে সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না তার মধ্যে অন্যতম একটি কারণ হলো বয়স। আপনি যদি বিজিবি চাকরি করতে চান তাহলে অবশ্যই নির্ধারিত বয়স অনুযায়ী আবেদন করতে হবে। আপনার বয়স যদি ২৩ এর বেশি হয় তাহলে আপনি আবেদন করতে পারবেন না। তাই অন্তত ২৩ বছর হওয়ার আগে আপনাকে বিজিবিতে আবেদন করতে হবে। 

অবশেষে আপনাদের জন্য শুভকামনা রইল। আশা করি  কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবিজব হয় না, এই বিষয়ে অনেক গুরুত্বপূর্ণ কিছু কথা জানতে পেরেছেন। তাই বিজিবির  মাঠে যাওয়ার আগে কি কি সমস্যা থাকলে বিজিবি চাকরি হয় না সেগুলো নিজ দায়িত্বে ভালোভাবে জেনে তারপর বিজিবি মাঠে যাবেন।

Leave a Comment